জ্বলে উঠলেন মুস্তাফিজ, জিতল রয়্যালস

স্পোর্টস ডেস্ক : প্রথম ম্যাচে পাঞ্জাব কিংসের কাছে হেরে দ্বিতীয় ম্যাচে মুস্তাফিজের দল হারিয়েছে দিল্লি ক্যাপিটালসকে। শেষ ওভারের রোমাঞ্চে তিন উইকেটের জয় পেয়েছে রাজস্থান। দুই উইকেট নেন মুস্তাফিজুর রহমান।

চলতি ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের দ্বিতীয় ম্যাচে এসে উইকেটের দেখা পেলেন মুস্তাফিজুর রহমান। তার উজ্জ্বল পারফরম্যান্সে দল রাজস্থান রয়্যালও নিজেদের প্রথম জয় তুলে নিয়েছে।

প্রথম ম্যাচে পাঞ্জাব কিংসের কাছে হেরে দ্বিতীয় ম্যাচে মুস্তাফিজের দল হারিয়েছে দিল্লি ক্যাপিটালসকে। শেষ ওভারের রোমাঞ্চে তিন উইকেটের জয় পেয়েছে রাজস্থান।

মুম্বাইয়ের ওয়াংখেরে স্টেডিয়ামে টস জিতে দিল্লিকে ব্যাটিংয়ে পাঠায় রাজস্থান।

৩৬ রানের মধ্যে তিন ব্যাটিং স্তম্ভ পৃথভি শ, শিখর ধাওয়ান ও আজিঙ্কা রাহানেকে আউট করেন জয়দেব উনাদকাট। দলকে বিপর্যয়ে ফেলেন এই সিমার।

একাই দলকে কিছুক্ষণ টেনে নিয়ে রান আউটের শিকার হন ৫১ রান করা রিশাভ পান্ট।

অস্ট্রেলিয়ান অলরাউন্ডার মার্কাস স্টয়নিস থিতু হওয়ার আগেই তাকে শূন্য রানে বিদায় করে নিজের প্রথম উইকেট তুলে নেন মুস্তাফিজ। পরে ক্রিজে সেট হতে চলা টম কারেনকেও ২১ রানে ফেরান দ্য ফিজ।

রাজস্থানের বোলিং তোপের সামনে ১৪৭ রান সংগ্রহ করে দিল্লী। ৪ ওভারে ২৯ রান দিয়ে দুই উইকেট নেন মুস্তাফিজ। ১৫ রানে তিন উইকেট নেন উনাদকাট।

ছোট টার্গেট সামনে রেখেও ৩৬ রানে চার উইকেট হারিয়ে ফেলে রাজস্থান। জস বাটলার ও মানা ভোহরাকে প্যাভিলিয়নের পথ দেখান ক্রিস ওকস।

আগের ম্যাচে সেঞ্চুরি পাওয়া সাঞ্জু স্যামসনকে ৪ রানে বিদায় করেন কাগিসো রাবাডা। শিভাম দুবের উইকেট নেন আভিস খান।

দিশেহারা অবস্থা থেকে দলকে পথ দেখান ডেভিড মিলনার। ৪৩ বলে ৬২ রান করে দলকে ১০৪ রানে রেখে আউট হন সাউথ আফ্রিকান এই হার্ড হিটার।

বাকী পথ সামাল দেন রাহুল টেওটিয়া ও ক্রিস মরিস। ১৯ রান করে ফেরেন রাহুল। তবে মরিস অপরাজিত থেকে দলকে দুর্দান্ত জয় এনে দেন। ১৮ বলে চার ছক্কায় ৩৬ রান আসে তার ব্যাট থেকে। শেষ বলে ছক্জকা হাঁকিয়ে য় নিয়েই মাঠ ছাড়েন আইপিএলের সবচেয়ে দামী ক্রিকেটার।

দুই বল হাতে রেখে লক্ষ্য টপকে যায় রাজস্থান। এ জয়ে পাঁচে উঠে এসেছে মুস্তাফিজের দল। ১৯ এপ্রিল চেন্নাই সুপার কিংসের বিপক্ষে নামবে রাজস্থান রয়্যালস।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.