আত্মগোপনে ছিলেন আবু ত্ব-হা : পুলিশ

শুক্রবার (১৮ জুন) বিকেলে রংপুর মহানগর পুলিশের ক্রাইম ডিভিশনের উপ-কমিশনার আবু মারুফ হোসেন এ তথ্য জানিয়েছেন

ব্যক্তিগত কারণে গাইবান্ধার ত্রিমোহনী এলাকায় বন্ধু বাসায় ইসলামি বক্তা আবু ত্ব–হাসহ চারজন আত্মগোপনে ছিলেন।

শুক্রবার (১৮ জুন) বিকেলে রংপুর মহানগর পুলিশের ক্রাইম ডিভিশনের উপ-কমিশনার আবু মারুফ হোসেন প্রেস ব্রিফিংয়ে সাংবাদিকদের এ তথ্য জানিয়েছেন।

শ্বশুরবাড়ি থেকে উদ্ধারের পর আবু ত্ব-হা পুলিশকে জানিয়েছে, ঘটনার দিন রাজধানীর গাবতলী থেকে স্ত্রীর মোবাইল নম্বরে কল দিয়ে সর্বশেষ কথা বলে বন্ধ করে দেন ‍তিনি। সেখান থেকে গাইবান্ধা সদর উপজেলার ত্রিমোহনীতে এক বন্ধুর বাড়িতে চলে যান। এরপর থেকে ব্যক্তিগত কারণে কারো সাথে যোগাযোগ করেননি। সেখানে তার গাড়িচালক আমির উদ্দিন ও মুহিত সাথে ছিলেন। অপর সঙ্গী মুজাহিদকে তারা বগুড়ায় রেখে যান।

আরও পড়ুন – নিখোঁজ ইসলামি বক্তা ত্ব-হাকে পাওয়া গেছে

শুক্রবার এক সঙ্গীকে বন্ধুর বাড়িতে রেখে অপরজনকে সাথে নিয়েরংপুর মহানগরীর মাস্টার পাড়া এলাকায় শ্বশুরবাড়িতে যান আবু ত্ব-হা। উল্লেখ্য, গত ১০ জুন বিকাল চারটার দিকে আবু ত্ব-হা মোহাম্মদ আদনান ও তার তিন সঙ্গীসহ রংপুর থেকে ভাড়া করা একটি গাড়িতে করে ঢাকার উদ্দেশে যাত্রা করে। তারপর সাভার থেকে তারা নিখোঁজ হন। স্বজনদের সাথে তার যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়।

নিখোঁজের সময় আবু ত্ব-হার সঙ্গে আব্দুল মুহিত, মোহাম্মদ ফিরোজ ও গাড়িচালক আমির ছিলেন। তারাও নিখোঁজ ছিলেন। ওই রাত থেকে সকলের মোবাইল ফোন বন্ধ ছিল। নিখোঁজ হওয়ার পর রংপুর মহানগর কোতয়ালী থানায় তার খোঁজ চেয়ে থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন তার মা আজেদা বেগম।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.