রাতভর ইসরায়েলের জঙ্গী হামলায় বিধ্বস্ত গাজা

সপ্তাহব্যাপী চলা ইসরায়েলি জঙ্গী হামলায় কমপক্ষে ১৯২ ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে

দ্বিতীয় সপ্তাহে প্রবেশ করেছে ইসরায়েল-ফিলিস্তিন সংঘাত। রবিবার (১৬ মে) দিবাগত রাতেও ইসরায়েলি বিমান থেকে গাজা উপত্যকায় চালানো হয়েছে একের পর এক জঙ্গী হামলা। এর কিছুক্ষণ আগেই ইসরায়েলি প্রধানমন্ত্রী বেনইয়ামিন নেতানিয়াহু ঘোষণা দেন, ফিলিস্তিনে হামলা আরও তীব্র করা হবে।

এদিকে ইসরায়েলি সন্ত্রাসী হামলার জবাবে দেশটির কয়েকটি শহরে রকেট হামলা চালিয়েছে গাজা উপত্যকার নিয়ন্ত্রণকারী হামাস। আসকেলন ও বিরসাবা শহরে রকেট হামলাগুলো চালানো হয়।

সংবাদমাধ্যম আল জাজিরা জানায়, রবিবার দিবাগত রাতের হামলা ছিলো ঘুবই ভয়াবহ। বিমান হামলায় গাজা শহরের উত্তর থেকে দক্ষিণ পর্যন্ত লণ্ডভণ্ড হয়ে যায়। রবিবার দিনভর চালানো নাশকতা হামলার চেয়েও রাতের এই হামলা বেশি সময় এবং এলাকাজুড়ে চালানো হয়। রবিবার দিনে চালানো সন্ত্রাসী দেশ ইসরায়েলের জঙ্গী হামলায় কমপক্ষে ৪২ ফিলিস্তিনি নিহত হয়।

সপ্তাহব্যাপী চলা ইসরায়েলি জঙ্গী হামলায় কমপক্ষে ১৯২ ফিলিস্তিনি নিহত হয়েছে। এর মধ্যে রয়েছে ৫৮ শিশু এবং ৩৪ নারী। এদিকে আত্মরক্ষার্থে হামাসের রকেট হামলায় ইসরায়েলের ১০ বাসিন্দা নিহত হয়েছে বলে জানিয়েছে দেশটির কর্তৃপক্ষ। তাদের মধ্যে দুই শিশু রয়েছে বলে উল্লেখ করা হয়েছে।

ইসরায়েল-ফিলিস্তিন সংঘাত নিরসনে রবিবার জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদ বৈঠক করে। তবে ওই বৈঠক ফলপ্রসু হয়নি। বৈঠক সফল না হওয়ার জন্য যুক্তরাষ্ট্রকে দায়ী করেছে চীন।

উল্লেখ্য, যুক্তরাষ্ট্র ইসরায়েলের সকল ধরণের সন্ত্রাসী ও জঙ্গী কার্যক্রমের মদদ দেয় এবং তাদের সহায়তা করে প্রকাশ্যেই।

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.