নারায়ণগঞ্জ থেকে সংবাদদাতা : নারায়ণগঞ্জ জেলা কারাগারসংলগ্ন বস্তিতে ভয়াবহ আগুন লাগার ঘটনায় অর্ধশতাধিক ঘর পুড়ে ছাই হয়েছে।

সোমবার ভোর ৪টার দিকে এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের ৮টি ইউনিট চেষ্টা চালিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।

এখন পর্যন্ত কোনো হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি। ভয়াবহ এ অগ্নিকাণ্ড থেকে রক্ষা পেয়েছে জেলা রেজিস্ট্রার অফিস, জেলা কারাগারসহ একটি সিএনজি পাম্প।

প্রতক্ষ্যদর্শীরা জানান, হঠাৎ করেই একটি ঝুটের গোডাউন থেকে আগুনের সূত্রপাত ঘটে। সেখান থেকে আগুন চারদিকে দ্রুত ছড়িয়ে পরে।

সেখানে কয়েকটি পরিবার থাকলেও অন্য পরিবারগুলো তাদের ঘর ঝুটের গোডাউন ভাড়া দিয়ে অন্যত্র বসবাস করেন।

ওই বস্তির ১০০ গজ দূরেই জেলা কারাগার ও একটি সিএনজি পাম্প রয়েছে। এছাড়া ওই বস্তির মাঝখানে রয়েছে নারায়ণগঞ্জ জেলা রেজিস্টার অফিস।

এলাবাসীর অভিযোগ, এ বস্তিতে প্রতিবছরই ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। তারপরও সরকারি ওই দুটি প্রতিষ্ঠানের আশপাশ থেকে অবৈধভাবে গড়ে ওঠা বস্তি উচ্ছেদের বিষয় জেলা প্রশাসন থেকে কোনো পদক্ষেপ নেয়া হয় না।

মণ্ডলপাড়াস্থ ফায়ার সার্ভিস এন্ড সিভিল ডিফেন্স কার্যালয়ের উপ-পরিচালক আবদুল্লাহ আল-আরেফিন জানান, বস্তি এলাকায় অগ্নিকাণ্ডের খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের ৮টি ইউনিট এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।

এতে প্রায় অর্ধ শতাধিক ঘর ও ঝুটের গোডাউন রয়েছে। অগ্নিকাণ্ডের কারণ ও ক্ষয়ক্ষতি পরিমাণ জানা যায়নি, তদন্তের পরই বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া যাবে।

ফতুল্লা মডেল থানার পরিদর্শক (অপারেশন) মজিবুর রহমান জানান, অর্ধশত ঘর পুড়েছে। আগুন লাগার কারণ জানতে তদন্ত চলছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.