বর্তমান সময়ে ফেসবুক আমাদের দৈনন্দিন জীবনের একটি অংশ হয়ে গিয়েছে। বাচ্চা থেকে শুরু করে বুড়ো বয়সী সবাই এর নেশায় আসক্ত বলা যেতে পারে। ফেসবুকে যাদের দিন রাত কাটে বিভিন্ন পেজ নিয়ে, তাদের জন্য আছে খুশির সংবাদ। এবার তাদের বড় লোক হতে আর বেশি দেরি নেই। কারণ ফেসবুক বাংলাদেশ থেকে ভিডিও মনিটাইজ সিস্টেম চালু করেছে।

আপনি যদি পেজ এর মালিক হয়ে থাকেন তাহলে এবার আপনার মনে আসতে পারে “আমার পেজ কি মনিটাইজ করা সম্ভব?”

উত্তরটি হচ্ছে, হ্যাঁ সম্ভব। কিছু স্টেপ পালন করলেই পেয়ে যেতে পারেন কাঙ্ক্ষিত মনিটাইজেশন।

উপায়ঃ

  • ফেসবুকের মনিটাইজেশনের প্রথম শর্ত হলো আপনার পেইজ এ মিনিমাম ১০,০০০ লাইক থাকতে হবে।
  • ১০ হাজার লাইকের পাশাপাশি থাকতে হবে শেষ ৬০ দিন বা ২ মাসে ৩০,০০০ মিনিট বা ৫০০ ঘন্টার ভিডিও ওয়াচ টাইম।
  • আপনার ভিডিওটি মনিটাইজেশন এর উপযুক্ত হতে হলে এর দৈর্ঘ্য হতে হবে কমপক্ষে ৩ মিনিট।

উপরের সব গুলো যদি ঠিকঠাক থাকে তাহলে আপনি পেজ মনিটাইজেশন করতে পারছেন।

তবে পড়ে নিতে ভুলবেন না ফেসবুকের Monetisation Eligibility Standards নিয়ম কানুনগুলো।

 

যেভাবে এটা কাজ করবে-

  • ফেসবুক লাইভ ভিডিও বিজ্ঞাপনঃ

ফেসবুক লাইভ স্ট্রিমিং এর সময় ক্রিয়েটররা ছোট বিরতি দিতে পারবেন। এই বিরতির সময়ে প্রচার হবে বিজ্ঞাপন। ১৫ সেকেন্ড এর বিজ্ঞাপন এর জন্য থাকবে রেভিনিউ।

  • ভিডিও অন ডিমান্ডঃ

অডিয়েন্স এর চাহিদা অনুসারে ভিডিও বানিয়ে পেয়ে যেতে পারেন আপনার কাঙ্ক্ষিত বিজ্ঞাপন। এছাড়া ইউটিউব এর মত বিজ্ঞাপন তো থাকছেই।

আপনার কন্টেন্ট এর থেকে পাওয়া মোট রেভিনিউ থেকে আপনার পকেটে আসবে ৫৫% আর বাকি ৪৫% যাবে জুকারবার্গের এর একাউন্টে।

কিভাবে চালু করবেন?

প্রথমে আপনার পেজ এ গিয়ে ক্লিক করুন Publishing Tools অপশনে। Publishing Tools অপশন থেকে চলে যান ক্রিয়েটর স্টুডিওতে। সেখানে পেয়ে যাবেন Check Eligibility অপশন। ওইখানে ক্লিক করে জেনে নিন আপনার পেজ মনিটাইজশেনর জন্য উপযুক্ত কিনা।

আপনার পেজ উপযুক্ত হয়ে থাকলে ভিডিও ম্যানেজারে গেলেই দেখতে পাবেন  ভিডিও এর সামনে ডলারের আইকন। আইকন সবুজ হলে আপনার ভিডিও মনিটাইজড। নীল থাকলে বুঝবেন ফেসবুক আপনার ভিডিও রিভিউ করছে। আর হলুদ হলে আপনার ভিডিও মনিটাইজেশন এর জন্য উপযুক্ত না।

কিভাবে পেমেন্ট পাবেন?

ক্রিয়েটর স্টুডিওতে বাম পাশে পাবেন অপশন। ওখানে  গিয়ে  পে আউট সেটিং এ এড করে ফেলুন সবকিছু।

সব স্টেপ ঠিকঠাক পার করে আসতে পারলে পেয়ে যেতে পারেন আপনার মনিটাইজেশন।

আশাকরি বুঝাতে পেরেছি সবকিছু। কিছু জানার থাকলে অবশ্যই কমেন্ট করবেন। শেয়ার করতে ভুলবেননা আর্টিকেলটি!

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.