রাজশাহী, বরিশাল ও সিলেট সিটি কর্পোরেশনে আগামী ৩০ জুলাই ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। এ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে যারা এসব সিটির বাসিন্দা বা ভোটার নন, তাদের শুক্রবার রাত ১২টার আগেই নির্বাচনী এলাকা ছাড়ার নির্দেশ দিয়েছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। এছাড়া এ নির্বাচন উপলক্ষে শনিবার রাত ১২টা থেকে সব ধরনের নির্বাচনী প্রচার-প্রচারণা বন্ধ থাকবে বলে জানানো হয়েছে।

ইসি সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ জানান, শুক্রবার রাত ১২টার মধ্যে বহিরাগতদের এ তিন সিটির নির্বাচনী এলাকা ছাড়ার নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। এরপরও কাউকে পাওয়া গেলে আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে।

election buildingইসি কর্মকর্তারা জানান, তিন সিটির নির্বাচনী এলাকায় শনিবার দিনগত রাত ১২টা থেকে মঙ্গলবার ভোর ছয়টা পর্যন্ত মোটর সাইকেল এবং রোববার দিনগত রাত ১২টা থেকে মঙ্গলবার পর্যন্ত অ্যাম্বুলেন্স, ডাক বিভাগ, ফায়ার সার্ভিস ও সিটি করপোরেশেনের ময়লাবাহী গাড়িগুলো ছাড়া অন্য সব যানবাহন বন্ধ রাখার নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

তারা জানান, এসব নির্দেশনার লঙ্ঘন হলে ৬ মাস থেকে ৭ বৎসর পর্যন্ত কারাদণ্ডের বিধান রয়েছে।

নির্বাচন সামনে রেখে রোববার থেকে মঙ্গলবার পর্যন্ত আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা মাঠে থাকবে। পুলিশ, বিজিবি, র্যাব, নির্বাহী-বিচারিক হাকিমসহ মোবাইল-স্ট্রাইকিং ফোর্স নির্বাচনকালীন দায়িত্বে থাকবেন।

সাধারণ কেন্দ্রে ২২ জন এবং গুরুত্বপূর্ণ কেন্দ্রে ২৪ জন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য মোতায়েন থাকবে।

রাজশাহী সিটিতে মোট ভোটার ৩ লাখ ১৮ হাজার ১৩৮ জন। এর মধ্যে পুরুষ ১ লাখ ৫৬ হাজার ৮৫ জন ও মহিলা ১ লাখ ৬২ হাজার ৫৩জন। ভোট কেন্দ্র ১৩৮টি ও ভোট কক্ষ ১ হাজার ২৬টি। এ সিটিতে মেয়র প্রার্থী মোট ৫ জন।

বরিশাল সিটিতে মোট ভোটার ২ লাখ ৪২ হাজার ১৬৬ জন। এর মধ্যে পুরুষ ১ লাখ ২১ হাজার ৪৩৬ জন ও মহিলা ১ লাখ ২০ হাজার ৭৩০ জন। ভোট কেন্দ্র ১২৩টি ও ভোট কক্ষ ৭৫০টি। এ সিটিতে মেয়র প্রার্থী মোট ৬ জন।

সিলেট সিটিতে মোট ভোটার ৩ লাখ ২১ হাজার ৭৩২ জন। এর মধ্যে পুরুষ ১ লাখ ৭১ হাজার ৪৪৪ জন ও মহিলা ১ লাখ ৫০ হাজার ২৮৮ জন। ভোট কেন্দ্র ১৩৪টি ও ভোট কক্ষ ৯২৬টি। এ সিটিতে মেয়র প্রার্থী মোট ৭ জন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.