ডেস্ক : এবার বোরো মৌসুমে ৩৮ টাকা কেজি দরে চাল কিনবে সরকার। গতবারের চেয়ে ৪ টাকা বেশি। আর ধান কেনা হবে ২ টাকা বাড়িয়ে ২৬ টাকা কেজি দরে। আগামী ২ মে থেকে ৩১ আগস্ট পর্যন্ত ধান ও চাল সংগ্রহ কার্যক্রম চলবে। এবার ১০ লাখ টন বোরো ধান ও চাল সংগ্রহের লক্ষ্যমাত্রা ঠিক করেছে সরকার। খাদ্যমন্ত্রী অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম এ কথা জানিয়েছেন।

গত বছর দেশের বিভিন্ন জায়গায় প্রাকৃতিক দুর্যোগে ধানের উৎপাদন কম হওয়ার পাশাপাশি সরকারের কম মজুদের খবরে বাজারে দফায় দফায় চালের দাম বাড়তে থাকে। পরবর্তীতে সরকারকে আমদানির মাধ্যমে চালের মজুদ বাড়াতে দেখা যায়।

বর্তমানে সরকারি গুদামগুলোতে সাড়ে নয় লাখ টন চাল এবং সাড়ে তিন লাখ টনেরও বেশি গম মজুদ আছে। এরপরেও সরকার এবারের বোরো মৌসুমে ১০ লাখ টন খাদ্য সংগ্রহের সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

খাদ্যমন্ত্রী বলেন, মোট ১ কোটি ৯০ লাখ টন ধান উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা। সব মিলিয়ে ১০ লাখ টন ধান ও চাল সংগ্রহ করা হবে। এছাড়া ৩৭ টাকা দরে ১ লাখ টন আতপ চাল সংগ্রহ করবে সরকার।

গতবছর তুলনায় এবার উৎপাদন খরচের চেয়ে প্রতিকেজি ধানে ২ টাকা এবং চালে ৪ টাকা বেশিতে খাদ্য সংগ্রহ করবে সরকার। সরকারের বোরো মৌসুমের পর্যাপ্ত খাদ্য সংগ্রহের সিদ্ধান্তে বাজারে ইতিবাচক প্রভাব পড়বে বলে মনে করেন খাদ্যমন্ত্রী।

তিনি বলেন, কৃষি মন্ত্রণালয়ের হিসাব অনুযায়ী এবার চালের উৎপাদন খরচ ধরা হয়েছে ৩৬ টাকা। কৃষকদের উৎপাদনের চেয়ে দুই টাকা বেশি দরে চাল সংগ্রহ করা হব। ধানের সংগ্রহ মূল্য ধরা হয়েছে ২৬ টাকা।

আমদানি নির্ভরতা কমানোর লক্ষ্যে কৃষকদের উৎপাদনে উৎসাহিত করতে সরকার খাদ্যশস্য ন্যায্য দাম নিশ্চিত করতে চায় বলে জানান অ্যাড. কামরুল।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.