প্রতিবেদক: কমপক্ষে ১০ বার, ২৫ বার এবং ৫০ বার রক্তদান করেছেন এমন প্রায় ২০০ স্বেচ্ছারক্তদাতাকে আইডি কার্ড, সার্টিফিকেট, ক্রেস্ট ও মেডেল দিয়ে সম্মাননা জানিয়েছে কোয়ান্টাম ফাউন্ডেশন।
শুক্রবার সকালে কাকরাইলের ইনস্টিটিউট অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স বাংলাদেশ (আইডিইবি) ভবনে এ উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে এই সম্মাননা জানানো হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) চেয়ারম্যান মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়া এনডিসি।
অর্থনৈতিক উন্নয়নের পাশাপাশি জীবনমানের উন্নয়নের ওপর গুরুত্ব দিয়ে এ সময় এনবিআর চেয়ারম্যান বলেন, আমরা অর্থনৈতিকভাবে এগিয়ে যাচ্ছি। কিন্তু সামাজিক ও পারিবারিকভাবে যদি আমরা সুখী না হই তাহলে অর্থনৈতিক উন্নয়নের ফসল আমরা কাজে লাগাতে পারবো না।
অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্যে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের হেমাটোলজি বিভাগের অধ্যাপক ডা. এ বি এম ইউনুস জানান, দেশে ৩৫ শতাংশ নিরাপদ রক্তের চাহিদা মেটে স্বেচ্ছা রক্তদাতাদের কাছ থেকে। অথচ দেশের ৬ লাখ ব্যাগ চাহিদা পূরণে মাত্র ২ লাখ স্বেচ্ছা রক্তদাতাই নিয়মিত দান করলে এ চাহিদা পূরণ সম্ভব।
অনুষ্ঠানে নিয়মিত স্বেচ্ছা রক্তদাতাদের পক্ষ থেকে মাহমুদা সুলতানা এবং নিয়মিত রক্তগ্রহীতাদের মধ্য থেকে থ্যালাসেমিয়ায় আক্রান্ত সুমাইয়া আক্তার সিমি অনুভূতি ব্যক্ত করেন।
সভাপতির বক্তব্যে কোয়ান্টাম স্বেচ্ছা রক্তদান কার্যক্রমের প্রধান সমন্বয়ক মাদাম নাহার আল বোখারী রক্তদাতাদের উদ্দেশে বলেন, আপনারা সেই সমমর্মী মানুষ, যারা মানুষের জীবন বাঁচাতে এগিয়ে এসেছেন। আপনাদের এই দান উত্তম দান। যার ঋণ কারো পক্ষেই শোধ করা সম্ভব নয়। আপনাদের সম্মানিত করে আমরা গৌরববোধ করি।
উল্লেখ্য, কোয়ান্টাম ফাউন্ডেশন ২০১৮ সালের জানুয়ারি পর্যন্ত ৯,৪৯,৩৪৪ ইউনিট রক্ত সরবরাহ করেছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.