কুষ্টিয়া প্রতিনিধি : বাংলাদেশে গণতন্ত্রের ন্যূনতম মানদণ্ড মানা হচ্ছে না বলে জার্মানির একটি গবেষণা প্রতিষ্ঠানের এমন মন্তব্যের জবাবে তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেছেন, গণতন্ত্র বিরাজমান না থাকলে কমনওয়েলথ রাষ্ট্রগুলোর স্পিকার ও পার্লামেন্ট মেম্বাররা এদেশে আসতেন না।

জাসদ সভাপতি তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু শনিবার দুপুরে কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে আরো বলেন, যারা এদেশে ভুতের সরকার প্রতিষ্ঠা করতে মরিয়া হয়ে উঠেছেন তারাই দেশে গণতন্ত্র নেই বলে অপপ্রচার চালাচ্ছেন।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশে এখন নিয়মমত নির্বাচন হচ্ছে। গণমাধ্যম বিকশিত হচ্ছে। সেখানে অন্তর্ঘাতমূলক মানুষ পোড়ানোর অপরাজনীতিকে মোকাবেলা করে সাংবিধানিক ও গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়া অব্যাহত রাখার প্রক্রিয়া রক্ষা করা সম্ভবপর হয়েছে।

জঙ্গীবাদী আগ্রাসী অপশক্তি দেশে-বিদেশে বাংলাদেশ সম্পর্কে বিরূপ ধারণা ছড়িয়ে দিতে অপপ্রয়াস চালিয়ে আসছে বলে এসময় মন্তব্য করেন মন্ত্রী।

বিএনপির কড়া সমালোচনা করে ইনু বলেন, জাতিসংঘ, এশিয়ান ডেভলপমেন্ট ব্যাংক ও জাইকাসহ আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলো দেশের উন্নয়নের প্রশংসা করছে। কিন্তু চোখে ছানি পড়ার কারণেই এসব অগ্রগতি বিএনপির আজ চোখে পড়ে না।

সব অপশক্তিকে দমন করার মাধ্যমে শেখ হাসিনার মহাজোট সরকার দেশের চলমান উন্নয়ন অব্যহত রাখতে বদ্ধপরিকর বলে মন্তব্য করেন হাসানুল হক ইনু।

এসময় জাতীয় নারী জোটের সভাপতি আফরোজা হক রীনা, ভেড়ামারা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সোহেল মারুফ, জাসদ কেন্দ্রীয় কার্যকরী কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক ও জেলা জাসদের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল আলীম স্বপন, ভেড়ামারা জাসদের সভাপতি এমদাদুল ইসলাম, ভেড়ামারা থানার অফিসার ইনচার্জ আমিনুল ইসলাম, মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার সরদার মোহাম্মদ আবু সালেক, জেলা জাসদের সাংগঠনিক সম্পাদক অসিত সিংহ রায় উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.