মান‌বিক এই বাংলা‌দেশকে তাই ব‌লি, স্যালুট বাংলাদেশ

 মান‌বিক এই বাংলা‌দেশকে তাই ব‌লি, স্যালুট বাংলাদেশ

শরীফুল হাসান : বাংলাদেশ আসলেই পৃথিবীতে অনন্য। পাঁচ লাখ রোহিঙ্গাকে আমরা যুগের পর যুগ আশ্রয় দিয়ে যাচ্ছি। শুধুমাত্র দুই সপ্তায় প্রবেশ করতে দিয়েছি দুই লাখ রোহিঙ্গাকে। আর এসব কারণেই রোহিঙ্গাদের কাছে এখন পৃথিবীর একমাত্র আশার নাম বাংলাদেশ।

আপনারা যারা রোহিঙ্গা ইস্যুতে সরকারের সমালোচনা করেন, বাংলাদেশের অবস্থান অপিরস্কার বলে সমালোচনা করেন, বলুন তো এই আধুনিক যুগে পৃথিবীর আর কোন দেশ এতোটা উদারতা দেখিয়েছে? অার কোন দেশ দুই সপ্তায় দুই লাখ লোক‌কে ঢুক‌তে দি‌য়ে‌ছে?

আপনারা যারা মানবন্ধন, সমাবেশের নামে সরকারকে গালি দিচ্ছেন, মাঝে মধ্যে মনে হয় আপনারা এখনো বাংলাদেশকেই ভালোবাসতে শে‌খেননি। আর সে কারণেই অাপনারা কেউ কেউ বিশ্বাস ক‌রেন তুরু‌ষ্কের জাহাজ এসে যুদ্ধ ক‌রে উদ্ধার কর‌বে সব রো‌হিঙ্গা‌দের। আপনাদের কারও কারও অাবার রোহিঙ্গা মেয়েদের দি‌য়ে দ্বিতীয় বিয়ে করার মতো বিকৃত ভাবনাও আসে। এই কার‌ণে বিকৃত ভাবনা বল‌ছি কা‌রে‌া অসহায়‌ত্বের সু‌যোগ নি‌য়ে বি‌য়ে কর‌তে চাওয়াটা বিকৃত ভাবনা অামার কা‌ছে।

ভাইরে একটু পেছনে তাকান। বর্তমানও দেখুন। যে যতোই কান্নাকাটি করুক, পৃথিবীর আর কোন দেশ রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দিতে রাজি নয়। এমনকি মিয়ানমারকে এই গণহত্যা বন্ধ করতে চাপ দিতেও তারা রাজি নয়। একবার ভাবুন তো তুরু‌স্কের প্রে‌সি‌ডেন্ট অার ফার্ষ্ট লে‌ডি কেন মিয়ানমার যা‌চ্ছেন না?

তুরুষ্কের ফার্ষ্টলেডির কান্না যাদের কাঁদিয়েছে তাদের জ্ঞাতার্থে বলি মিয়ানমা‌রে গি‌য়ে কাঁদেন না কেন? কেন মুস‌লিম বিশ্ব‌কে ব‌লেন না মিয়ানমার এই নির্যাতন বন্ধ না কর‌লে ওঅাই‌সি দেশগু‌লো একঘ‌রে কর‌বে মিয়ানমার‌কে। এর নাম দ্বিচারিতা। বাংলাদেশের অন্তত সেটা নেই। অাচ্ছা বলুন তো রো‌হিঙ্গা নির্যাতন দে‌খেও সারা পৃ‌থিবী কেন নিশ্চুপ? কেন চুপ ক‌রে অা‌ছে সৌ‌দি অারবসহ মুস‌লিম বিশ্ব? বিশ্ব মানবতাবাদীরাই বা কেন চুপ?

কাজেই সমালোচনা করতে চাইলে সবার আগে মিয়ানমারের, এরপর জাতিসংঘের সমালোচনা করুন। সমালোচনা করুন বিশ্ব মোড়লদের। চাপ সৃস্টি করতে চাইলে তাদের ওপর করুন। দুনিয়ার সব দেশের মিয়ানমারের দূতাবাস ঘেরাও করুন বিদেশিদের নিয়ে। বলুন মিয়ানমারকে গণহত্যা বন্ধ করতে। রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে। কিন্তু দয়া করে আমার বাংলাদেশের অবস্থান নিয়ে, অন্তত রোহিঙ্গা ইস্যুতে ফালতু বকবেন না। বরং ব্য‌ক্তি, প্র‌তিষ্ঠান যে যেভা‌বে পা‌রি চলুন সহ‌যোগিতা ক‌রি সরকার‌কে।

আবারও বলি বাংলাদেশের মতো আর্থিকভাবে দুর্বল একটা দেশ, চরম ঝুঁকি জানার প‌রেও লাখ লাখ রোহিঙ্গাদের জন্য বছ‌রের পর বছর যা যা করছে সেটা অনন্য। সারা পৃথিবীর উচিত বাংলাদেশকে স্যালুট দেয়া। কারণ দুনিয়ার সব বড়লোক আর মোড়লদের বাংলা‌দেশ শেখাচ্ছে কীভাবে অসহায় মানুষদের পাশে থাকতে হয়। মান‌বিক এই বাংলা‌দেশকে তাই ব‌লি, স্যালুট বাংলাদেশ।

লেখক : সাবেক গণমাধ্যম কর্মী (লেখাটি লেখকের ফেসবুক পাতা থেকে নেয়া)।

mimmahmud

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.