ডেস্ক : সুইডিশ প্রধানমন্ত্রী স্টিফেন লোফভেনের আমন্ত্রণে দেশটিতে তিনদিনের দ্বিপক্ষীয় সম্মেলনে যোগদানের উদ্দেশে ঢাকা ত্যাগ করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। মঙ্গলবার দুপুর ১২টা ১০ মিনিটে প্রধানমন্ত্রী ও তার সফরসঙ্গীদের নিয়ে বিমান বাংলাদেশ এয়ার লাইন্সের (বিজি-০০১) একটি ভিভিআইপি ফ্লাইট হযরত শাহজালাল বিমানবন্দর ত্যাগ করে।

ফ্লাইটটি লন্ডন হয়ে স্টকহোমে পৌছাবে। এটি বাংলাদেশের কোনো সরকার প্রধানের স্ক্যান্ডিনেভিয়ান দেশটিতে প্রথম দ্বিপক্ষীয় সফর।

অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত, শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু, সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা এইচ টি ইমাম, তিন বাহিনী প্রধানগণ, ঢাকাস্থ যুক্তরাজ্যের হাইকমিশনার বিমানবন্দরে প্রধানমন্ত্রীকে বিদায় জানান।

প্রধানমন্ত্রীকে বহনকারী ফ্লাইটটি আজ (মঙ্গলাবর) সন্ধ্যায় হিথ্রো আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছাবে। সেখানে যুক্তরাজ্যে বাংলাদেশের হাইকমিশনার নাজমুল কাওনাইন প্রধানমন্ত্রীকে অভ্যর্থনা জানাবেন।

প্রধানমন্ত্রী লন্ডনে ২৪ ঘণ্টা যাত্রাবিরতি করবেন। আগামীকাল (বুধবার) বিকেলে স্ক্যান্ডিনেভিয়ান এয়ারলাইন্সের একটি ফ্লাইটে স্টকহোমের উদ্দেশে লন্ডন ত্যাগ করবেন তিনি।

প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম বলেন, প্রধানমন্ত্রী ৪৭ সদস্যের ব্যবসায়ী প্রতিনিধিসহ একটি উচ্চ পর্যায়ের প্রতিনিধিদলের নেতৃত্ব দিচ্ছেন। ১৫ জুন সেখানে সুইডিশ প্রধানমন্ত্রী স্টিফেন লোফভেনের সঙ্গে আনুষ্ঠানিক বৈঠক করবেন।

এ ছাড়া প্রধানমন্ত্রী সুইডিশ পার্লামেন্ট পরিদর্শন এবং ভারপ্রাপ্ত স্পিকার তোবিয়াস বিলসট্রোমের সঙ্গে বৈঠক করবেন তিনি। আনুষ্ঠানিক বৈঠকের প্রাক্কালে শেখ হাসিনা রয়্যাল ক্যাসল-এ সুইডিশ রাজা ষোড়শ কার্লের সঙ্গেও সাক্ষাৎ করবেন।

১৫ জুন সন্ধ্যায় প্রবাসী বাংলাদেশিদের সংবর্ধনায় এবং ১৬ জুন বাংলাদেশ-সুইডেন বিজনেস অ্যান্ড ইনভেস্টমেন্ট ফোরামের বৈঠকে যোগ দেবেন প্রধানমন্ত্রী।

তিনদিনের সুইডেন সফর শেষে আগামী ১৭ জুন লন্ডন হয়ে দেশে ফিরবেন প্রধানমন্ত্রী।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.